Goodman Travels

ঈশ্বরদী বাজারের কাপড়ের ব্যবসায়ীর রহস্যজনক মৃত্যু!

বিশেষ প্রতিনিধিঃ ঈশ্বরদী বাজারের এক কাপড় ব্যবসায়ীর লাশ তার ভাড়া বাসা হতে উদ্ধার হয়েছে। শাকিল (৩২) নামের এই যুবক মুলাডুলি ইউনিয়নের প্রতিরাজপুরের দুবলিয়া গ্রামের ইব্রাহিম হোসেনের পুত্র।
শুক্রবার রাত ১১টার পর শহরের সরকারি করেজের সামনে রূপনগরের গলিতে (মাহাতাব কলোনী) তার ভাড়া বাসা হতে লাশ উদ্ধার করা হয়। রহস্যজনক এই মৃত্যুর ঘটনাকে পরিবারের লোকজন এবং প্রতিবেশীরা হত্যাকান্ড বলে চিহ্ণিত করেছে। আর এই হত্যাকান্ডের তীর স্ত্রীর দিকেই নিক্ষেপ করা হচ্ছে। এঘটনায় নিহতের স্ত্রী মীম খাতুন (১৯)কে পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে।
নিহতের মামা মুলাডুলির ইউপি মেম্বার তারা মালিথা জানান, প্রতিরাজপুর গ্রামের নিজের বাড়ি ছেড়ে শাকিল প্রায় দশ দিন আগে শহরের করেজ রোডের সামনে ওই বাড়ির দোতালা ভাড়া করে স্ত্রীকে নিয়ে উঠে। শুক্রবার রাত ১০.৪০ মিনিটের দিকে ভাগিনা শাকিলের ফোন থেকে স্ত্রী ফোন করে তাকে জানায়, শাকিল কি যেন খেয়েছে কথা বলছে না।
এসময় মেম্বার দ্রুত বাড়িওয়ালার সহযোগিতা নিয়ে সাথে নিয়ে পাশের হাসপাতালে নেয়ার জন্য অনুরোধ করে। তিনি আরো জানান, আমি দূরে থাকায় ওই এলাকার আত্মিয়-স্বজনকে ঘটনা জানালে তারা ঘটনাস্থলে এসে দেখে স্ত্রী মীম শায়িত শাকিলকে সামনে নিয়ে বসে আছে। কিন্তু শাকিল মৃত।
এসময় আগতরা শাকিল মৃত্যুর কারণ জানতে চাইলে স্ত্রী মীম বলে ৪-৫ জন এসে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে চলে গেছে। সে বাঁধা দিলে তাকেও লাথি মেরেছে।
ঈশ্বরদী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ফিরোজ কবীর এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত (রাত ১২.৪৫) ঘটনাস্থলেই রয়েছেন। স্ত্রী মীমকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় নেয়া হয়েছে বলে জানিয়ে তিনি বলেন, ঘটনা সম্পর্কে এখনই কোন কিছু বলা সম্ভব নয়। আওয়ামীলীগ পরিবারের সন্তান শাকিল পৌর মেয়র ইসাহক আলী মালিথার সম্পর্কে নাতি ও অত্যন্ত ঘনিষ্টজন ছিলেন।